লিফটের ব্রেকিং রেজিস্টর

লিফটের ব্রেকিং রেজিস্টর

এলিভেটর জগতে ব্রেকিং রেজিস্টর খুবই পরিচিত একটি যন্ত্রাংশ। এটি মূলত VFD/VVVF ড্রাইভের সাথে কানেকশন দিতে হয়। এই ব্রেকিং রেজিস্টর নিয়ে কিছু জানার চেষ্টা করব।
ব্রেকিং রেজিস্টর কি?
রেজিস্টর এর অভিধানিক অর্থ হল রোধ, আরো সহজে বলতে গেলে বাধা। এটি হচ্ছে ভোল্টেজের জন্য বাধা। কোন সার্কিটে অতিরিক্ত ভোল্টেজ ড্রপ করানোর জন্য এটি ব্যবহার করা হয়। ব্রেকিং রেজিস্টরও একই কাজ করে।
কেন?
সাধারণত মন্দনের (Deceleration) সময় অর্থাৎ যখন রোটর RPM স্ট্যাটর RPM এর চেয়ে বেশী হয় তখন মটর, জেনারেটরের মত কাজ করে। অর্থাৎ এটি ভোল্টেজ উৎপন্ন করে এবং এই ভোল্টেজ মুল ড্রাইভে ফিরে আসে (লেঞ্জ এর মতে)। আর এই অতিরিক্ত ভোল্টেজকে(Back EMF) ব্রেকিং রেজিস্টর তাপ রুপে বের করে দেয়। তা না হলে ড্রাইভ ক্ষতিগ্রস্থ হবে। সুতরাং এই ব্রেকিং রেজিস্টরকে আমরা ড্রাইভের রক্ষাকবচও বলতে পারি।
কিভাবে কাজ করে?
প্রত্যেক VFD/VVVF ড্রাইভের সাধারণত তিনটি অংশ থাকে।
১। ডায়োড রেক্টিফায়ার
২। ব্রেকিং সার্কিট (চপার এন্ড রেজিস্টর)
৩। PWM ইনভার্টার
ব্রেকিং সার্কিট (চপার এন্ড রেজিস্টর), একটি সুইচিং ডিভাইস (IGBT), একটি রেজিস্টর ও একটি ডাযোডের সমন্বয় গঠিত। চপার মূলত একটি DC টু DC কনভার্টার। AC সার্কিটে ট্রান্সফরমারের মত DC সার্কিটে চপার DC ভোল্টেজকে স্টেপ আপ এবং স্টেপ ডাউন করে। যখন DC bus ভোল্টেজ ব্রেকিং সার্কিট এক্টিভেশন ভোল্টেজ এর সমান (DC bus ভোল্টেজের ১২৫%) হয় তখন IGBT ট্রিগার করে এবং অতিরিক্ত ভোল্টেজ ব্রেকিং রেজিস্টরের মাধ্যমে বাইপাস হয়ে যায়।
ক্যালকুলেশন?
ব্রেকিং রেজিস্টর নির্বাচন এর পূর্বে এর দুইটি বিষয়ে নিশ্চিত হতে হয়।
১। রেজিস্ট্যান্স
২। পাওয়ার
তার আগে কিছু ক্যালকুলেশন করা যাক
DC bus ভোল্টেজ, Vdc = (2)1/2* Vac(rms)
= 1.41* Vac(rms) (আদর্শ হিসাবে)……………………(১)
কিন্তু যেহেতু ড্রাইভে ব্রীজ রেক্টিফায়ার ডায়োড ব্যবহার করে হয় এবং সেখানে কিছু ডায়োড রেক্টিফায়ার লস হয়, যার ফলে সমীকরণটি দারায়,
Vdc = 1.35* Vac(rms)………………………………(২)
এখন ব্রেকিং সার্কিট এক্টিভেশন ভোল্টেজ (IGBT ট্রিগার ভোল্টেজ) হল DC bus ভোল্টেজ এর ১২৫%।
অর্থাৎ,
Vtr = 1.25* Vdc
Vtr = 1.25*1.35*Vac(rms)………………………………(৩)
আবার,
Ppeak = Pm*t*n
যেখানে,
Pm = মটরের ক্ষমতা
t = সর্বচ্চো টর্ক (সাধারণত ১০০-২০০%, কিছু না থাকলে 1.5 নিয়ে হিসাব করা হয়)
n = মটরের কর্মদক্ষতা
এখন,
ব্রেকিং রেজিস্টরের রেজিস্ট্যান্স এর মান,
R = (Vtr)2/Ppeak
R = (1.25*1.35*Vac(rms))2 / Pm*t*n…………………………(৪)
আর ব্রেকিং রেজিস্টরের পাওয়ার,
P = Ppeak*(%Duty cycle)1/2*0.5
= Pm*t*n*(%Duty cycle)1/2*0.5…………………………(৫)
এখানে,
Duty cycle = এক্সেলারেশন টাইম + রান টাইম + ডিসেলারেশন টাইম
%Duty cycle = ডিসেলারেশন টাইম/ Duty cycle
তবে ব্রেকিং রেজিস্টরের পাওয়ার মূলত মটরের ধরন, লোডের ধরন, স্ট্যাটিং,স্টপিং এর সময় সহ আরো কিছু প্যারামিটারের উপর নির্ভর করে।
উদাহরণঃ
একটি মটরের ইনফো প্লেটের তথ্য যদি এমন হয়,
মটরের ক্ষমতা, Pm = 4.5 KW = 4500 W
ইনপুট ভোল্টেজ, Vac(rms) =380 Volt
সর্বচ্চো টর্ক, t = প্রতি উনিটে শতকরা টর্ক 150% =1.5
কর্মদক্ষতা, n = 95% = 0.95
%Duty cycle = 0.5
সুতরাং ব্রেকিং রেজিস্ট্যান্স, (৪) হতে
R = (1.25*1.35*380)2/(4500*1.5*0.95)
= 64.125 ohm
আর পাওয়ার, (৫) হতে
P = 4500*1.5*0.95*(0.5)1/2*0.5
= 2276.16 Watt
বি.দ্রঃ কোথাও কোন সংশোধনের প্রয়োজন মনে করলে অথবা কারও কাছে নতুন কোন তথ্য থাকলে অবশ্যই কমেন্টে জানাবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

You may use these HTML tags and attributes:

<a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>

Related Posts

বিশ্বে করোনা ভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
সূত্র: আইইডিসিআর

বিশ্বে

আক্রান্ত
১১২,১০৩,৭২৪
সুস্থ
৬৩,৩৭৮,৩৪৯
মৃত্যু
২,৪৮৬,৩৬৩

সর্বশেষ